পেলের ক্যানসারের অবনতি, বড়দিন হাসপাতালেই কাটাতে হবে

অস্ত্রোপচারের মাধ্যমে গত বছর সেপ্টেম্বরে মলাশয়ের টিউমার অপসারণ করেছিলেন পেলে। এর পর থেকেই কেমোথেরাপি নিয়ে আসছেন তিনবারের বিশ্বকাপজয়ী এ কিংবদন্তি। কিন্তু শরীরে কেমোথেরাপি কাজ না করায় গত ২৯ নভেম্বর হাসপাতালে ভর্তি করা হয় তাঁকে।

এরপর সংবাদমাধ্যম জানিয়েছিল, শারীরিক অবস্থার কিছুটা উন্নতি হয়েছে পেলের। তাঁকে সাধারণ ওয়ার্ডেও নিয়ে আসা হয়। এভাবেই সব চলছিল। তবে কাল হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে নতুন খবর। পেলের ক্যানসারের অবনতি হয়েছে। এ ছাড়া কিডনি ও হৃদ্‌যন্ত্রের সমস্যাও আছে। বড়দিনটা কিংবদন্তিকে হাসপাতালেই কাটাতে হবে।

 

সাও পাওলো আলবার্ট আইনস্টাইন হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন পেলে। কাল হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ বলেছে, ৮২ বছর বয়সী পেলের ‘কিডনি ও হার্টের সমস্যার জন্য তাঁর আরও নিবিড় তত্ত্বাবধান প্রয়োজন।’

তাঁকে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) রাখা না হলেও ক্যানসারের অবস্থার ‘অবনতি’ হয়েছে বলে জানিয়েছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। হাসপাতালে ভর্তির সময় পেলের শ্বাসযন্ত্রে সংক্রমণও ধরা পড়েছিল। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ এ নিয়ে কিছু বলেনি। পেলের পরিবার থেকে তাঁর হাসপাতালে ভর্তির বিষয়টি স্বীকার করা হয়েছে।

 

পেলের মেয়ে কেলি নাসিমেন্তো ইনস্টাগ্রামে লেখেন, ‘বাসায় বড়দিন উদ্‌যাপন বাতিল হয়ে গেল। চিকিৎসকের সঙ্গে আলোচনা করেই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। আইনস্টাইন হাসপাতাল যে সেবা দিচ্ছে, তা নিতেই আমাদের এখানে থাকতে হবে।’

২৯ নভেম্বর পেলেকে হাসপাতালে ভর্তির পর তাঁকে নিয়ে বড় দুশ্চিন্তায় পড়েছিল ফুটবল-বিশ্ব। সংবাদমাধ্যম জানিয়েছিল, পেলে জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে। পরে অবশ্য সুস্থ হয়ে ওঠেন, যা তখন ভক্তদের জানিয়েছিলেন পেলের মেয়ে কেলি নাসিমেন্তো ও ফ্লাভিয়া আরান্তেস।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *